বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেছেন, ‘দেশের কিছু হুজুররা বলেন শাড়ি পড়ে নামাজ জায়েজ না; কিন্তু আমাদের মা জননীরা শাড়ি পড়ে নামাজ পড়েছে আব্রু রক্ষা করেছে। তাহলে আপনারা কেন সব উল্টাপাল্টা কথা বলবেন? হিজাব তো আর আমাদের দেশের সংস্কৃতি না এটা সৌদি আরবের, তাহলে এটা আমরা কেন পড়বো?’।

গত রবিবার (১৫ জুন) জাতীয় প্রেসক্লাবের তফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া হলে গার্হস্থ্য নারী শ্রমিক ইউনিয়ন আয়োজিত কর্মস্থলে নারীর প্রতি সহিংসতা বন্ধে আইএলও কনভেনশন প্রণয়ন ও বাস্তবায়নে গৃহ শ্রমিকের অধিকার ও মর্যাদা ও নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে আইন চাই শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এখন এমন অবস্থা হয়েছে এসব কাঠমোল্লাদের ব্যাপারে যা আর বলার না। এখন নাকি শাড়ি পড়ে নামাজ পড়া জায়েজ না এটা হচ্ছে আমাদের দেশের পরিস্থিতি! আমাদের মা জননীরা শাড়ি পড়ে নামাজ পড়েছে আব্রু রক্ষা করেছে। তাহলে আপনারা কেন সব উল্টাপাল্টা কথা বলবেন? হিজাব তো আর আমাদের দেশের সংস্কৃতি না এটা সৌদি আরবের তাহলে এটা আমরা কেন পড়বো। এমন হলে তো আমাদের মা, দাদী কেউ বেহেশতে যাবে না।’

এসময় তিনি নারীদের আরও বেশি জোর দিয়ে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

মেনন বলেন, ‘রাসূল (স.) বলেছেন, মায়ের পায়ের তলায় সন্তানের বেহেস্ত। তাই যদি হয় তাহলে মেয়েদের সম্পর্কে হুজুররা এসব উল্টোপাল্টা কথা কেন বলবেন।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here